শিরোনাম

বগুড়ায় চেতনানাশক ওষুধ খাইয়ে তরুণীকে ধর্ষণ, ছাত্রলীগ নেতা গ্রেফতার


শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় তরুণীকে ধর্ষণ মামলায় রিপন রায় (৩০) নামের এক ছাত্রলীগের সাবেক নেতাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার রাতে পৌর শহরের সকাল বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়। রিপন রায় বসাকপাড়া মহল্লার বিদু রায়ের ছেলে এবং বগুড়া জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সাধারণ সম্পাদক। এর আগে ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা করেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, বিগত চার বছর ধরে তরুণী (২০) শহরের উত্তর সাহাপাড়াস্থ তার নানাবাড়ি থাকতেন। দেড় বছর আগে ছাত্রলীগ নেতা রিপনের সঙ্গে তার পরিচয় হয়। তিনি তরুণীকে প্রেমের প্রস্তাব দেন। রাজি না হওয়ায় ভয় দেখিয়ে ৩০ আগস্ট বিকেলে কৌশলে তাকে বেড়াতে নিয়ে যান। রাতে তাকে চেতনানাশক খাইয়ে নানাবাড়িতে নিয়ে যান। এ সময় বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে রিপন তরুণীকে ধর্ষণ করেন।

ভুক্তভোগী তরুণী বলেন, ‘ছাত্রলীগের বড় নেতা পরিচয় দিয়ে ভয় দেখিয়ে চেতনানাশক খাইয়ে আমার সর্বনাশ করেছে। আইনের আশ্রয় নিতেও বাধার সৃষ্টি করে। এমনকি ঘটনার পর থেকেই প্রায় ১৭ দিন আমাকে নজরদারির মধ্যে রাখা হয়। বলা চলে এক রকম গৃহবন্দি অবস্থা। তবে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সহযোগিতায় থানায় মামলা করেছি। আমি ন্যায় বিচার চাই।’

শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান খন্দকার বলেন, ধর্ষণের ঘটনায় শনিবার দিনগত রাতে মামলা নেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত রিপন রায়কে গ্রেফতার করা হয়। ধর্ষণের শিকার তরুণীকে ডাক্তারি পরীার জন্য বগুড়ায় শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

এদিকে থানা হাজতে ঘটনাটি সম্পর্কে বক্তব্য জানতে চাইলে গ্রেফতার রিপন কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। এমনকি এ নিয়ে কোনো কথা বলবেন না বলে জানান।


Check Also

বগুড়ায় ঘুমন্ত শিশুকে পুকুরে ছুড়ে হত্যা, পাষণ্ড বাবা গ্রেফতার

শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি : প্রথমে মেয়ে সন্তানের পর প্রত্যাশা ছিল ছেলে সন্তানের। কিন্তু আবারও মেয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.